Breaking News
Home / বাংলা হেল্‌থ / পাওনা টাকার জন্য জড়িয়ে ধরে করো’না রোগী যা বললেন

পাওনা টাকার জন্য জড়িয়ে ধরে করো’না রোগী যা বললেন

Advertisement

কক্সবাজারে ক’রো’নায় আ’ক্রান্ত এক যুবকের বি’রুদ্ধে পাওনা টাকা আদায়ের জন্য এক সুস্থ ব্যক্তিকে জড়িয়ে ধ’রার অ’ভিযোগ উঠেছে। মঙ্গ’লবার জে’লার লিংকরোড স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, লকডাউন অমা’ন্যকারী করো’না আ’ক্রান্ত ওই রোগী (৩২) কক্সবাজার সদর উপ’জে’লার ঝিলংজা ইউনি’য়নের পশ্চিম মুকতারকুল গ্রামের বাসিন্দা। পেশায় সিএনজি চালিত ট্যাক্সি ব্যবসায়ী। তিন দিন আগে তার করো’না পজিটিভ ধ’রা পড়ে।

ঝিলংজা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়া’রম্যান টিপু সুলতান জানান, করো’না আক্রান্ত যুবক বেপরোয়া আ’চরণের সা’লিশ-বিচার নিয়ে আম'রাও বির’ক্ত হয়ে পড়েছি। তিনি লকডাউন না মেনে হরদম মো’টরসা’ইকেল নিয়ে চলাচল করায় স্থানীয়রাও বিপাকে পড়েছেন।

ইউপি চেয়া’রম্যান আ’রো জানান, করো’না পজি’টিভ হওয়ার পর সদর উপ’জে’লা নির্বাহী কর্মক’র্তা (ইউএনও) গত রবিবার তাকে নিজ ঘরে আ’ইসো’লেশনে থেকে চিকিৎসার পরামর্শ দেন। সেই সাথে পাড়াটিও লক’ডাউন ঘোষণা করা হয়। কিন্তু একদিন পরেই তিনি লকডাউন অমান্য করার কাজ শুরু করে দেন। সর্বশেষ লিংকরোড স্টেশ’নের এক দোকানির কাছে পাওনা টাকা আ’দায়ের জন্য হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়েন। পরে তাকে আজকে আই’সোলে’শনে পাঠানো হয়েছে।

জানা গেছে, পাওনা টাকা আ’দায়ের কৌশল হিসাবে ওই রোগী নিজেই উত্তে’জিত হয়ে দোকা’নিকে ঝা’পটে ধরে বলেন, ক’রোনা’য় আমিও ম’রব-তুইও ম’র।

এলাকার ইউনিয়ন পরিষদ মেম্বার নাসির উদ্দিন জানান, করো’না রোগীর ‘ক’রোনা হা’মলার’ খবর পেয়েই আমি এবং চে’য়ারম্যা’ন সাহেব দ্রুত ঘট’নাস্থ’লে ছুটে যাই। হা’মলার শিকার ওই ব্যক্তিকে আম’রা দ্রুত সাবান নিয়ে গোসল করার ব্য’বস্থা করি।

এ বিষয়ে ক’ক্সবা’জার সদর উপজে’লা নির্বাহী কর্মক’র্তা (ইউএনও) মাহমুদ উল্লাহ মারুফ জানান, তিনি খবর পে’য়েছেন স্টেশনে এক করো’না রো’গী লক’ডাউন অমান্য করে লো’কজনের সাথে ঝগড়া’ঝাটি করছেন। অ’পর’দিকে কক্সবা’জার সদর মডেল থা’নার ওসি (ত’দন্ত) মোহাম্মদ খায়রুজ্জামান জানিয়েছেন, তিনি বিষয়টি শুনেছেন।

Advertisement
Advertisement

Check Also

লবণ, গোলমরিচ ও লেবু দূর করবে যে ১০টি জটিল স্বাস্থ্য সমস্যা!

Advertisement Advertisement সাধারণত সালাদ তৈরিতে আম'রা কী কী ব্যবহার করি? লবণ, গোলমরিচ এবং লেবু এই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!