আপনার বাড়িতে নেগেটিভ শক্তির কু’প্রভাব আছে কিনা যেভাবে বুঝবেন – OnlineCityNews

আপনার বাড়িতে নেগেটিভ শক্তির কু’প্রভাব আছে কিনা যেভাবে বুঝবেন

আপনার বাড়িতে নেগেটিভ শক্তির কু’প্রভাব আছে কিনা যেভাবে বুঝবেন – শক্তি নেগেটিভ বা পজিটিভ দুরকমই হতে পারে। এটিকে খালি চোখে দেখা যায় না, কিন্তু অনুভব করা যায়। আমা’দের চারপাশের বিভিন্ন ঘটনার মধ্যে দিয়ে আম'রা শক্তিকে অনুভব করতে পারি। সকলের

বাড়িতেই নেগেটিভ বা পজিটিভ শক্তি বিরাজ করে। মানুষের চিন্তাভাবনা, অনুভূতি এবং আবেগের ফলাফল হল এই শক্তি। আমা’দের ঘরের পরিবেশ শান্তি বা ঝুঁকিপূর্ণ করে তুলতে এই শক্তি মহান ভূমিকা গ্রহন করে। শুধুমাত্র আপনার বাড়ির সদস্যরাই নয়, আপনার বাড়ির অতিথিদেরও এমন অনেক ক্ষমতা রয়েছে যা আপনার স্বাস্থ্য, মেজাজ এবং কল্যাণের উপর প্রভাব ফেলতে পারে। কখনও কখনও নেগেটিভ

শক্তি আপনার বাড়িতে জায়গা করে নেয়, যা বাড়ির সদদ্যদের মধ্যে রুক্ষ মেজাজের সৃষ্টির কারন হয়ে ওঠে। এই শক্তিকে চেনার অনেকগুলি পদ্ধতি রয়েছে। আজ আম'রা আপনাকে নেগেটিভ শক্তি দূর করার সবচেয়ে সহজ কৌশল সম্পর্কে বলবো। এই কৌশলটি শুধুমাত্র এক গ্লাস জল দ্বারা পূর্ণ করা সম্ভব। প্রতিবেদনটি শেষ পর্যন্ত পড়ুন। সমস্যার সবচেয়ে বড় কারণ হল আপনার চিন্তা, আবেগ ও বিভিন্ন ঘটনা। পরিবারে

শান্তি, সম্প্রীতি ও পজিটিভিটি বজায় রাখার জন্য আপনাকে বাড়ির নেগেটিভ শক্তিগুলিকে চিনে তা দূর করতে হবে। বাড়ির দেয়াল, আসবাবপত্র, কার্পেটের মধ্যে আপনার নেগেটিভ চিন্তা ও চাপ শোষিত হয়। এই নেগেটিভ শক্তি আপনার বাড়ির বাকি অংশে ছড়িয়ে পড়তে বেশি সময় লাগে না। কোন দুর্ঘ’টনা ঘটার পর অবশ্যই আপনার বাড়িটিকে পরিষ্কার করুন। যেকোনো দুর্ঘ’টনা আপনার জীবন এবং মনের

ওপর প্রভাব ফেলে। যা আপনার অর্থ, সম্পর্ক এবং সম্প্রীতি নষ্ট করতে পারে। নেগেটিভ শক্তি উদ্বেগ এবং অস্থিরতা বৃদ্ধি করে। এটির ফলে আপনি আত্মঘাতীও হতে পারেন। সুতরাং, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আপনার বাড়ির নেগেটিভ শক্তি অপসারণ করা খুব প্রয়োজনীয়। শুধুমাত্র এক গ্লাস জল ব্যবহার করে আপনি আপনার বাড়ি থেকে নেগেটিভ শক্তি অপসারন করতে পারেন। যা করতে হবেঃ একটি স্বচ্ছ কাচের গ্লাসে এক

তৃতীয়াংশ সমুদ্রের লবণ ঢালুন, তারপর ১/৩ জল এবং ১/৩ ভিনিগার দিয়ে এটি ভর্তি করুন। আপনার বাড়ির যে অংশে সর্বাধিক খারাপ বাতাবরণ রয়েছে বলে মনে করছেন সেখানে একটি লুকানো অবস্থানে এই গ্লাসটি রাখুন। এক দিন সেই কাচের গ্লাসটি স্পর্শ বা স্থা’নান্তর করবেন না। পরের দিন গ্লাসটির দিকে নজর দিন। যদি কাচের গ্লাসটি আগের মতই থাকে, তবে এটার মানে যে সেখানে কোনো নেগেটিভ শক্তি নেই।

বাড়ির অন্য স্থানে এটি করার চেষ্টা করুন। উপরে উল্লিখিত পদ্ধতি অনুযায়ী এটি করুন। এক দিন পর যদি দেখেন যে কাচের গ্লাসে বুদবুদ বা ধোঁয়া রয়েছে, তাহলে সেটি নেগেটিভ শক্তির এক ইঙ্গিত। অন্য একটি কাচের গ্লাসের মাধ্যমে পদ্ধতিটি পুনরাবৃত্তি করুন, যতক্ষণ না আপনি একটি পরিষ্কার গ্লাস পাচ্ছেন। এক দিন পর টয়লেটে কাচের গ্লাসের জিনিসটি ফ্লাশ করে দিন। এই সহজ পদ্ধতিতে আপনি অবশ্যই আপনার

বাড়ি থেকে নেগেটিভ শক্তি দূর করতে পারবেন। যখনই আপনি আপনার চারপাশে খারাপ শক্তি অনুভব করবেন, এই সহজ কৌশলটি অনুসরণ করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *