থরে থরে সাজানো হাজার টাকার বান্ডিল, কিন্তু একটাও কোন কাজে লাগবে না! – OnlineCityNews

থরে থরে সাজানো হাজার টাকার বান্ডিল, কিন্তু একটাও কোন কাজে লাগবে না!

ঈদ, পূজাসহ বড় বড় উৎসবকে টার্গেট করে জাল টাকা ছড়িয়ে দেয়ার সংঘবদ্ধ চক্রের ছয় সদস্যকে গ্রে’ফতার করেছে গোয়েন্দা পু’লিশ। রাজধানীর তেজগাঁও বিভাগের একটি টিম বিশেষ অ’ভিযানে তাদের গ্রে’ফতার করে। এসময় বিপুল পরিমাণ জাল টাকা ও সরঞ্জাম জ’ব্দ করা হয়।

থরে থরে সাজানো হাজার টাকার বান্ডিল। আছে ডলারও। মুদ্রার রং, জলছাপ থেকে শুরু করে সবকিছুই যেন আসল। প্রথম দেখায় বি’ভ্রান্ত হতে পারেন যে কেউ। আসলে এর সবই মেশিনে ছাপানো, জালটাকা।

শুক্রবার (২৪ অক্টোবর) গোয়েন্দা পু’লিশের তেজগাঁও বিভাগের একটি টিমের বিশেষ অ’ভিযানে গ্রে’ফতার হন জালটাকা তৈরির সংঘবদ্ধ চক্রের ছয় সদস্য। এসময় তাদের কাছ থেকে ৫৮ লাখ ৭০ হাজার টাকা মূল্যমানের বাংলাদেশি জালনোট, ১১৩ টি জাল ডলার ও ছাপানো জাল টাকার ২ বান্ডিল কাগজ উ’দ্ধার করা হয়। জ’ব্দ করা হয় টাকা তৈরির বিভিন্ন সরঞ্জাম।

অ’তিরিক্ত পু’লিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার বলেন, দুজন ব্যক্তিকে প্রথমে গ্রে’ফতার করা হয়, তাদের জিজ্ঞাসাবাদে মূল হোতাকে গ্রে’ফতার করা হয়। এসব টাকার মধ্যে বিভিন্ন ব্যাংকের সিল মা’রা থাকে যেন সহ’জেই ধ’রা না পড়ে।

পু’লিশ জানায়, গ্রে’ফতারকৃতরা ৫ থেকে ৬ বছর ধরে জালনোট তৈরি করে বিক্রি করে আসছিল। দেশের বিভিন্ন উৎসবকে টার্গেট করে চলে তাদের অ’প’রাধমূলক এই কর্মকা’ণ্ড।

অ’তিরিক্ত পু’লিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার বলেন, যে মাস্টারমাইন্ড তার নামে যশোরেও মা’মলা আছে।

সংঘবদ্ধ এমন চক্র আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাবাহিনীর চোখ ফাঁকি দিতে ঘনবসতিপূর্ণ আবাসিক এলাকায় তাদের আস্তানা গড়ে। এদের বি’রুদ্ধে সাধারণ মানুষকে আরো সচেতন থাকার পরাম’র্শ পু’লিশের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *