‘বিনা দোষে জে’ল খাটলাম, এখন মামুন তো ফিরে আসছে, আমার গ’র্ভের ন’ষ্ট হওয়া সন্তান কী ফিরে আসবে?’ – OnlineCityNews

‘বিনা দোষে জে’ল খাটলাম, এখন মামুন তো ফিরে আসছে, আমার গ’র্ভের ন’ষ্ট হওয়া সন্তান কী ফিরে আসবে?’

মি’থ্যা মা’মলা আর ভুল তদ’ন্তে আমি কোনও অপ’রাধ না করেও দে’ড় বছর কা’রা’ভোগ করেছি। এখন কে ফি’রিয়ে দিবে আমা’র সেই দিনগুলো? আমা’র গ’র্ভের বা’চ্চা ন’ষ্ট হয়েছে কেউ’ কী পারবে সেই ক্ষ’তিপূ’রণ দিতে?







সম্প্রতি নারা’য়ণ’গঞ্জে আদা’লত পাড়া’য় গা’র্মেন্টসক’র্মী তাস’লিমা কেঁ’দে কেঁ’দে আ’কুতি করছিলেন আ’র এসব কথা বল’ছিলেন। তাস’লিমার মা ব’লেন, আমা’দের বাড়ি চাঁ’দপু’রের ম’তলবে। মা’মুন আর আমা’গো বা’ড়ি পাশাপাশি।







মা’মুন হা’রায়া যা’ওনের দু’ই বছর আ’গে মাই’য়ারে ফো’নে বির’ক্ত কর’তো। তখন ওরা দুজ’নেই ছো’ট ছিল। তাস’লিমার তখন ১৪-১৫ বছর হইব। আম’রা না করে দি’সি যাতে ও’রে বির’ক্ত না করে। যদি বি’য়া করতে চায় তাই’লে আ’লাদা হিসাব।







কিন্তু এর’পর থেকে আর কো’নও যোগা’যোগ নাই আ’মার মা’ইয়ার সাথে। মা’মলার পাঁচ মা’স আগে আ’মার মাই’য়ার বি’য়া হয়। এক’দিন এলা’কা দিয়া মা’ইয়া আ’র মা’ইয়ার জা’মাই যাই’তাসি’লো তখন আ’বুল কালাম, কা’লামের মাইয়া,







কা’লামের বউ মি’ল্লা তা’সলিমা আ’র ওর জা’মাইরে ই’চ্ছামত মা’রলো। মা’রার সময় কই’লো আমা’র মা’ইয়া না’কি মা’মুনরে মা’ইরা ফে’লছে। ওই স’ময় তাস’লি’মার পে’টে বা’চ্চা। মাই’রের চো’টে মা’ইয়ার বাচ্চা’ও ন’ষ্ট হইয়া গে’ছে তখন।







মা’মুনের বা’পে পি’টানের কয়েকদিন পর মত’লব থা’নায় যায় আমা’গো নামে মা’মলা করতে। কিন্তু পুলি’শ মা’মলা নেয় নাই। দুই মাস পরে হে’রা ফ’তু’ল্লা থা’নায় আইসা মা’মলা করছে। সেই মত’লব থে’ইক্কা আ’ম'রা আইসা আ’ইসা হা’জিরা দিতাম।







আমা’র মাইয়ারে রি’মা’ন্ডে নি’য়ে ইচ্ছামতো মা’রছে। মাই’য়া হাঁ’টতে পার’তো না। এক বছ’রের বেশি সময় এই মা’মলায় জে’ল খা’টছে। এই বি’চার এখ’ন কে কর’বো? ওর বা’চ্চা ফিরা’য়া দি’তে পার’বো? এই ছয় বছরের অ’শা’ন্তি ফি’রায়া দিতে পার’বো?







প্রস’ঙ্গত, মামুন ২০১৪ সা’লে নিখোঁ’জ হ’লেও দুই ব’ছর পর ফতু’ল্লা মডে’ল থা’নায় মামুনের বাবা আবুল কালাম অপহ’রণে’র মা’মলা করেন। তিনি মা’মলার এজা’হারে উল্লেখ করেন, তাসলিমার সঙ্গে তার ছেলে মামুনের প্রেম ছিল।







তাসলিমার ভাই তা মে’নে নে’য়নি। তা’রা মামু’নকে অপহ’রণ করে আ’টকে রা’খে। এ মাম’লার ত’দন্ত কর্মক’র্তা এসআ’ই মিজা’ন এক আসামির রি’মা’ন্ড শেষে’ আ’দালতে জবা’ব’ন্দি রেক’র্ড করা আ’বেদনে একজন সা’ক্ষীর বরাত দিয়ে উল্লে’খ করেন,







ত’দন্ত’কা’লে জা’না গেছে আসা’মিরা ভিক’টিম’কে শ্বা’সরো’ধ করে হ’ত্যা ক’রে ম’রদে’হ নদী’তে ফে’লে দেয়। বুধবার আসা’মি’দের জা’মিনে’র আ’বেদনের প্র’স্তুতি নিয়ে’ছিলেন আ’ইনজী’বী। ওই দি’ন পুলি’শের মৃ’ত সে’ই মা’মুন আদা’লতপা’ড়ায় জী’বিত হা’জির হ’লে বি’ষ্মিত ‘হয় বিবা’দীপক্ষ আ’র আইন’জীবী। এর’ মধ্যে দি’য়ে নারা’য়ণগ’ঞ্জে জ’ন্ম নেয় আ’রেকটি জি’সাম’নিকাণ্ড।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *